Ration Card E-KYC Update: এই নিয়ম না মানলেই বন্ধ হতে পারে বিনামূল্যে রেশন পাওয়া, রেশন গ্রাহকদের জন্য রাজ্য সরকারের বড় নির্দেশ

Sub-Editor
4 Min Read

News Connectors: রেশন কার্ড (Ration Card) নিয়ে রাজ্য সরকার (West Bengal Government) আবারও গ্রাহকদের E-KYC বাধ্যতামুলক করেছে। এই কাজ অতি দ্রুত শেষ করার জন্যে পাকাপোক্ত হয়ে উঠেছে নবান্ন। খাদ্য দফতর কে ইতিমধ্যে এই কাজ শেষ করার জন্যে নির্দেশও জারি করেছে সরকার। এখনো অনেক রেশন গ্রাহক আছে যারা এখনও E-KYC Update করেনি। তার কারণ হচ্ছে অনেকেরই আধার কার্ডে বায়োমেট্রিক আপডেট কারো বা মোবাইল নাম্বার লিংক (Aadhaar Card Biomatric Update and Mobile Number Link) কনোটাই করানেই।  সেই সমস্ত গ্রাহকদের অবগত করতে বাড়ি বাড়ি গিয়ে E-KYC করার নির্দের দিয়েছে সরকার বা নবান্ন জানিয়েছে ডিলাররা সেই সমস্ত গ্রাহকদের বাড়িতে গিয়ে বা দোকানে ডেকে E-KYC সম্পন্ন করতে হবে।

Ration Card E-KYC Update
Ration Card E-KYC Update

Ration Card E-KYC Update Is Mandatory In West Bengal

এর জন্যে ডিলারদের আলাদা করে টাকা দেওয়া হবে। নবান্ন (Nabanna) সূত্রের খবর, গ্রাহকদের বেশিরভাগকেই আধার নম্বর দেওয়া হলেও তাঁদের E-KYC এখনো সম্পূর্ণ হয়নি। এই ধরনের গ্রাহকের সংখ্যা প্রায় 2 কোটির মতো। রাজ্যে এখন সক্রিয় রেশন গ্রাহকের (Ration Card) সংখ্যা প্রায় 8 কোটি 85 লক্ষ। খাদ্য দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, এখন রেশনে খাদ্য বণ্টনের ক্ষেত্রে 99 শতাংশের বেশি লেনদেন আধারের বায়োমেট্রিক যাচাই প্রক্রিয়ার মাধ্যমেই হচ্ছে।

পরিবারের একজন সদস্যের E-KYC করা থাকলেই তিনি সকল সদস্যদের বরাদ্দ মাল সংগ্রহ (Ration Card) করতে পারছেন। পরিবারের একজন ছাড়া বাকি সদস্যদের E-KYC করা না থাকলেও এটা সম্ভব। আর এইসকল কারনেই মূলত পশ্চিমবঙ্গ সরকার রেশন গ্রাহক সকল পরিবারের সকল সদস্যেরই ই-কেওয়াইসি করে নিতে চাইছে খাদ্যদপ্তর। কোনও পরিবারের যেসব সদস্যের E KYC হয়নি, পোর্টালে তাদের নাম নীল রঙে চিহ্নিত করা আছে।

খাদ্যদপ্তরের স্থানীয় অফিস গুলি থেকে রেশন ডিলারদের বলা হয়েছে, যেসব পরিবারের সকলের E-KYC হয়নি, তাদের কেউ খাদ্য সংগ্রহ করতে এলে বকেয়া কাজটি দ্রুত সম্পন্ন করে নিতে বলতে হবে। খাদ্যদপ্তর জানিয়েছে, পরিবারের সব সদস্যের E-KYC করা থাকলে সেই পরিবারটির ক্ষেত্রেই বেশী সুবিধা হবে। কারণ পরিবারের ই-কেওয়াইসি সম্পন্ন করা একমাত্র সদস্য কোনও কারণে অনুপস্থিত থাকলে পুরো পরিবারই রেশন (Ration Card) থেকে বঞ্চিত হয়ে যেতে পারে।

তাই সকলের E-KYC করা থাকলে এই সমস্যা এড়ানো সম্ভব। সব রেশন গ্রাহক দের E-KYC প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার জন্য খাদ্যদপ্তর বারবার নির্দেশ দিয়েছে। প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন করতে প্রথম দিকে এজেন্সি নিয়োগ করে বাড়ি বাড়িও গিয়েও KYC এর কাজ করানো হয়। এলাকাভিত্তিক দুয়ারে সরকারের মাধ্যমে বিশেষ শিবির খোলা হয়েছিল একাধিক দফায়। তাও অনেকেই এই কাজ করেনি। তাই এবার নবান্ন সূত্রে রেশন (Ration Card) ডিলারদের মাধ্যমে দোকানে ও বাড়িতে গিয়ে E-KYC প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার বিজ্ঞপ্তি জারি হয়।

এজন্য অতিরিক্ত কমিশন দেওয়া হয় ডিলারদের। খাদ্যদপ্তরের অফিস, BSK (Bangla Sahayata Kendra) এবং https://food.wb.gov.in/ এ প্রবেশ করে LINK AADHAAR WITH RATION CARD অপশনে ক্লিক করেও এই কাজ নিজের থেকে বা যেকোনো Cyber Cafe থেকেও একাজ করা সম্ভব, তবে এক্ষেত্রে অবশ্যই গ্রাহকের আধার কার্ডের সাথে নিজেস্য মোবাইল নাম্বার লিংক থাকতে হবে । তা সত্ত্বেও বহু সংখ্যক গ্রাহকের E-KYC বাকি কেন, সেই প্রশ্ন উঠেছে বার বার। তবে এও বলা হচ্ছে, আধার আপডেট (Ration Card Link With Aadhaar Card) না থাকা বা শারীরিক অসুবিধার কারণে অনেক গ্রাহক E-KYC করতে পারছেন না।

কিভাবে বাড়ীতে বসেই নিজের রেশন কার্ডের সাথে আধার লিংক করবেন? How to link Aadhaar with your Ration Card at home?

Ration Card E-KYC Update Is Mandatory In West Bengal
Ration Card E-KYC
  1. প্রথমে আপনাকে খাদ্যদপ্তরের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট https://food.wb.gov.in/-এ প্রবেশ করতে হবে।
  2. এরপর নিচের দিকে লিংক আধার উইথ রেশন কার্ড অপশনে ক্লিক করতে হবে।
  3. এর পর নতুন একটা উইনডো চালুহবে, সেখানে আপনার রেশন কার্ড নাম্বারটি দিয়ে Search বাটনে ক্লিক করতে হবে।
  4. তারপর আপনার তথ্য যাচাই করে আধার নাম্বার দিতে হবে এবং OTP এর মাধ্যমে রেশন কার্ডে আধার লিংক করে নিতে পারবেন।
  5. এটি সম্পন্ন হতে ৭-৩০ দিন পর্যন্ত সময় লাগতে পারে।
Share This Article
Hello Friends, I am Achhir Ali Sub-Editor of News Connectors from Kolkata, West Bengal. I am a Blogger, Web Designer, Graphics Designer and Social Media Ads Expert. I am Working in this field since last 5 years.
1 Comment